ঢাকা সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪ , ১ বৈশাখ ১৪৩১ আর্কাইভস ই পেপার

nogod
nogod
bkash
bkash
uttoron
uttoron
Rocket
Rocket
nogod
nogod
bkash
bkash

পঞ্চম গণবিজ্ঞপ্তিতে আবেদন শুরু ১৭ এপ্রিল

শিক্ষা

আমাদের বার্তা প্রতিবেদক  

প্রকাশিত: ১৮:১৭, ৩১ মার্চ ২০২৪

সর্বশেষ

পঞ্চম গণবিজ্ঞপ্তিতে আবেদন শুরু ১৭ এপ্রিল

আগামী ১৭ এপ্রিল বেলা ১২টা থেকে অনলাইনে ৫ম গণ বিজ্ঞপ্তিতে শিক্ষক নিয়োগের আবেদন শুরু হবে। আগামী ৯ মে পর্যন্ত আবেদন গ্রহণ চলবে। আর ১০ মে রাত ১২টা পর্যন্ত আবেদনের ফি জমা দেয়া যাবে।

রোববার বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ (এনটিআরসিএ)- এর প্রকাশিত গণবিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানা গেছে।

জানা যায়, এবার এমপিওভুক্ত ৯৬ হাজার ৭৩৬টি শূন্য পদে শিক্ষক নিয়োগে পঞ্চম গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।

পঞ্চম ধাপে এ শিক্ষক প্রক্রিয়ায় বিভিন্ন বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের এমপিওভুক্ত বা প্যাটার্নভুক্ত এন্ট্রি লেভেলের শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে।

এসব পদের মধ্যে বিভিন্ন এমপিওভুক্ত স্কুল-কলেজের ৪৩ হাজার ২৮৬টি পদ এবং মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ৫৩ হাজার ৪৫০টি পদ রয়েছে।

এনটিআরসিএ অরো জানায়, ২০২৪ খ্রিষ্টাব্দের ১ জানুয়ারি যেসব প্রার্থীর বয়স ৩৫ বছর বা তার কম তারা শিক্ষক নিয়োগে আবেদনের সুযোগ পাবেন। 

গণবিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ৯৬ হাজার ৭৩৬টি শিক্ষক শূন্যপদের তালিকা এনটিআরসিএর (www.ntrca.gov.bd) এবং টেলিটকের ওয়েবসাইটে (http://ngi.teletalk.com.bd) আগামী ১৭ এপ্রিল বেলা ১২টায় প্রকাশ করা হবে। 

এ সময়ের পর থেকে আবেদন করা যাবে। বিষয় পদ ও প্রতিষ্ঠানের ধরন অনুযায়ী নিবন্ধনধারীরা শিক্ষক নিয়োগে আবেদন করতে পরবেন। 

আবেদনকারীর যোগ্যতা ব্যাপারে বলা হয়েছে, সংশ্লিষ্ট বিষয়, পদ ও প্রতিষ্ঠানের ধরন অনুযায়ী নিবন্ধনধারী হতে হবে, এনটিআরসিএ কর্তৃক প্রকাশিত সম্মিলিত মেধা তালিকার অন্তর্ভুক্ত থাকতে হবে, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ এবং কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগ থেকে জারিকৃত সর্বশেষ জনবল কাঠামো ও এমপিও নীতিমালা অনুযায়ী কাম্য শিক্ষাগত যোগ্যতা সম্পন্ন হতে হবে। 

কাম্য শিক্ষাগত যোগ্যতার বিবরণ দেখার জন্য এনটিআরসিএর ওয়েবসাইটের ‘পঞ্চম গণবিজ্ঞপ্তি’নামের সেবা বক্সে ক্লিক করতে হবে।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ এবং কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগ থেকে জারিকৃত সর্বশেষ জনবল কাঠামো ও এমপিও নীতিমালা অনুযায়ী প্রার্থীকে আবশ্যিকভাবে কেবল তার শিক্ষক নিবন্ধন সনদে উল্লিখিত বিষয় সংশ্লিষ্ট পদ ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আবেদন করতে হবে। 

আবেদনকারী মিথ্যা তথ্য দেয়ার মাধ্যমে আবেদন করলে এবং তদন্ত অনুযায়ী নিয়োগ সুপারিশপ্রাপ্ত হলে সেই সুপারিশ বাতিলসহ তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

জনপ্রিয়