ঢাকা মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ , ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০ আর্কাইভস ই পেপার

nogod
nogod
bkash
bkash
uttoron
uttoron
Rocket
Rocket
nogod
nogod
bkash
bkash

মিরপুর সাইন্স কলেজে নবীনবরণ, কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা

শিক্ষা

আমাদের বার্তা প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৯:৫৬, ৩ ডিসেম্বর ২০২৩

সর্বশেষ

মিরপুর সাইন্স কলেজে নবীনবরণ, কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা

মিরপুর সাইন্স কলেজের নবীনবরণ ও কৃতি শিক্ষার্থী সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত শনিবার পল্লবীর একটি কমিউনিটি সেন্টারে এ অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। 

অনুষ্ঠানে ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষের  শিক্ষার্থীদের বরণ, ২০২৩ খ্রিষ্টাব্দের এইচএসসি পরীক্ষায় জিপিএ-৫ (এ+) ৫১ জন শিক্ষার্থীকে ক্রেস্ট, ২০২২-২৩ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীদের  ১ম বর্ষ ফাইনাল পরীক্ষায় সম্মিলিত মেধা তালিকায়  স্থান প্রাপ্ত ১৫ জনকে  ক্রেস্ট  ও  ৩ জনকে ১,০৫০০০/- (একলক্ষ পাঁচ হাজার) টাকার শিক্ষাবৃত্তি এবং ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে (১ম ব্যাচ) থেকে ভর্তি পরীক্ষায় ২৫ জন যারা বুয়েট, মেডিক্যাল, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে চান্স পেয়েছে তাদের ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।   

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত চিকিৎসক, শেখ রাসেল গ্যাস্ট্রোলিভার হাসপাতালের প্রতিষ্ঠাতা ও  ভিজিটিং প্রফেসর বীর মুক্তিযোদ্ধা  ডা. সিরাজুল ইসলাম শিশির। 

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন মিরপুর সাইন্স কলেজের উপদেষ্টা এবং অতীশ দীপঙ্কর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. জাহাঙ্গীর আলম, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের  আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা (উপসচিব) মোতাকাব্বীর  আহমেদ,  শহীদ আবু তালেব উচ্চ বিদ্যালয়ের সভাপতি, মিরপুর সাইন্স কলেজের উপদেষ্টা, বিশিষ্ট সমাজসেবক আলহাজ্ব মোঃ খলিলুর রহমান,  ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ৩ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর কাজী জহিরুল ইসলাম মানিক, মিরপুর সাইন্স কলেজের সভাপতি আলহাজ্ব বাবলু সরকার প্রমুখ। 

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন মিরপুর সাইন্স কলেজের প্রতিষ্ঠাতা অধ্যক্ষ আনোয়ার হোসেন রিপন।
সভাপতির বক্তব্যে কলেজের প্রতিষ্ঠাতা অধ্যক্ষ আনোয়ার হোসেন রিপন বলেন, আজকের এই অনুষ্ঠানে জ্ঞানী-গুণী ব্যক্তিদের আগমন এই নবীনবরণ অনুষ্ঠানকে সার্থক ও সফল করে তুলেছে। অনেক ব্যস্ততার মধ্যে নবীনবরণ অনুষ্ঠানে আসার জন তিনি অতিথিদেরকে বিশেষভাবে ধন্যবাদ জানান।

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, শুধু জিপিএ-৫ পেলেই হবে না আগে ভালো মানুষ হতে হবে। এরপর চেষ্টা করতে হবে ভালো একটা প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হয়ে বাবা-মার স্বপ্ন পূরণ করা।

জনপ্রিয়